Tech Express
techexpress.com.bd

পাকিস্তানে টিকটক বন্ধের নির্দেশ দিলেন হাইকোর্ট

নিজস্ব প্রতিবেদক:
চীনা অ্যাপ টিকটক বন্ধে পাকিস্তান টেলিযোগযোগ কর্তৃপক্ষকে (পিটিএ) নির্দেশ দিয়েছেন দেশটির পেশোয়ার হাইকোর্ট।

‘সমাজে অশ্লীলতা ছড়িয়ে দেওয়ার’ কারণে গত বৃহস্পতিবার এই নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মের বিরুদ্ধে আবেদনের শুনানির সময় এই আদেশ দেন পাকিস্তানের পেশোয়ার হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি কায়সার রশিদ খান।

বিচারপতি কায়সার রশিদ খান বলেছেন, টিকটকে আপলোড করা ভিডিওগুলো পাকিস্তানি সমাজে গ্রহণযোগ্য নয়। বেশিরভাগ তরুণদের ওপর ক্ষতিকর প্রভাব ফেলছে টিকটক। প্ল্যাটফর্মটি নিয়ে যে প্রতিবেদন পাওয়া গেছে তা দুঃখজনক। তাঁর মন্তব্য, ভিডিওগুলো ‘অশ্লীলতা ছড়াচ্ছে’। তাই প্ল্যাটফর্মটি অবিলম্বে বন্ধ করা উচিত।

এদিকে পেশোয়ার হাইকোর্টের রায়ের পর পাকিস্তানে নিষিদ্ধ করা হয়েছে টিকটক। এমনটাই জানিয়েছে ডয়চে ভেলে বাংলা। এই নিয়ে দ্বিতীয়বার পকিস্তানে নিষিদ্ধ করা হলো চীনা অ্যাপ টিকটক।

সিএনএন বলছে, পাকিস্তানের টেলিযোগাযোগ কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, পেশোয়ার হাইকোর্ট টিকটক বন্ধের নির্দেশ দিলে তারা টিকটককে নিষিদ্ধ করেছে। পাকিস্তানের দুই আইনজীবী টিকটকের বিরুদ্ধে হাইকোর্টে মামলা করেছিলেন।

তাদের বক্তব্য ছিল, টিকটকে যে ভিডিও আপলোড করা হয়, তা অনৈতিক ও পাকিস্তানের নৈতিক মূল্যবোধ ও মাপদণ্ডের সঙ্গে খাপ খায় না। আদালত তাদের যুক্তি মেনে নিয়েছে। পাকিস্তানে এর আগেও টিকটক নিষিদ্ধ করা হয়েছিল। এই নিয়ে দ্বিতীয়বার তা নিষিদ্ধ হলো। ২০২০ সালের অক্টোবরে পাকিস্তানে প্রথমবার টিকটক নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয়। তখন এই নিষেধাজ্ঞা কয়েক দিন চলে। টিকটক প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল, অশ্লীল ও অনৈতিক পোস্ট যারা দিচ্ছে, তাদের সব অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দেওয়া হবে। সূত্র: ডন, ডয়চে ভেলে, সিএনএন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.