Tech Express
techexpress.com.bd

করোনার সময়ে দেশে বেড়েছে প্রায় এক কোটি ফেসবুক ব্যবহারকারী

গত এক বছরে করোনা সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর থেকে বাংলাদেশে ফেসবুকসহ বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের ব্যবহার বেড়েছে। এ সময়ে ফেসবুক ব্যবহারকারীর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ায় প্রায় এক কোটি। তার চেয়ে বেশি বেড়েছে মেসেঞ্জার ব্যবহারকারী। বেড়েছে ইস্টাগ্রাম, লিংকডইনের ব্যবহারও। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের ব্যবস্থাপনা প্ল্যাটফর্ম নেপোলিয়নক্যাটের পরিসংখ্যান থেকে এ তথ্য জানা যায়।

বিভিন্ন দেশের ফেসবুক, মেসেঞ্জার, ইস্টাগ্রাম, লিংকডইনসহ অন্যান্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহারকারীদের প্রতি মাসের ব্যবহারের হিসাব দিয়ে থাকে পোল্যান্ডভিত্তিক প্রতিষ্ঠান নেপোলিয়নক্যাট। তাদের হিসেব মতে, এ বছরের মে মাস পর্যন্ত বাংলাদেশে ফেসবুক ব্যবহারকারীর সংখ্যা দাঁড়ায় ৪ কোটি ৮২ লাখ ৩০ হাজার। এই সংখ্যা দেশের মোট জনসংখ্যার ২৮ শতাংশ।

ব্যবহারকারীদের মধ্যে ৩০ দশমিক ৯ শতাংশ নারী এবং ৬৯ দশমিক ১ শতাংশ পুরুষ। এছাড়া ব্যবহারকারীদের মধ্যে ১৮ থেকে ২৪ বছর বয়সীরাই সবচেয়ে বেশি। তাদের সংখ্যা ২ কোটি ১২ লাখ। গত বছরের এপ্রিল মাসে বাংলাদেশে ফেসবুক ব্যবহারকারীর সংখ্যা ছিল ৩ কোটি ৮৪ লাখ ৭৫ হাজার। সে হিসাবে, গত এক বছরে ফেসবুক ব্যবহারকারীর সংখ্যা বেড়েছে ৯৭ লাখ ৫৫ হাজার।

করোনার এই সময়ে সবচেয়ে বেশি বেড়েছে মেসেঞ্জার ব্যবহারকারীর সংখ্যা। ২০২০ সালের এপ্রিল মাসে দেশে মেসেঞ্জার ব্যবহার করতেন ৯৩ লাখ ৯১ হাজার মানুষ। এক বছরে এ সংখ্যা সাড়ে চার গুণ বেড়ে হয়েছে ৪ কোটি ২১ লাখ ৫০ হাজার।

বাংলাদেশে ইনস্টাগ্রাম ব্যবহারকারীর সংখ্যা এখন ৪০ লাখ ৭১ হাজার, যা জনসংখ্যার মাত্র ২ দশমিক ৩ শতাংশ। এর মধ্যে পুরুষ ৬৮ দশমিক ৬ শতাংশ এবং নারী ৩১ দশমিক ৪ শতাংশ। এছাড়া, পেশাজীবীদের জন্য সামাজিক যোগাযোগের অন্যতম মাধ্যম লিংকডইনের ব্যবহারও বাংলাদেশে বেড়েছে। এ বছরের মে মাস পর্যন্ত লিংকডইন ব্যবহারকারীর সংখ্যা ৪১ লাখ ১৭ হাজার, যা জনসংখ্যার ২ দশমিক ৪ শতাংশ।

Leave A Reply

Your email address will not be published.