Tech Express
techexpress.com.bd

মালয়েশিয়ায় ‘ডেটা সেন্টার অঞ্চল’ নির্মাণ করছে মাইক্রোসফট

নিজস্ব প্রতিবেদক:
মাইক্রোসফট মালয়েশিয়ায় বিভিন্ন দেশের ডেটা ব্যবস্থাপনার জন্য একাধিক ডেটা সেন্টার নিয়ে গঠিত প্রথম “ডাটাসেন্টার অঞ্চল” প্রতিষ্ঠা করবে বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী মুহিউদ্দিন ইয়াসিন।

দেশটির সরকারি সংস্থা ও স্থানীয় ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে নতুন এক অংশীদারি কর্মসূচির আওতায় আগামী পাঁচ বছর মালয়েশিয়ায় মাইক্রোসফট একশ’ কোটি ডলার বিনিয়োগ করবে বলেও জানান তিনি।

‘বার্সামা মালয়েশিয়া’ উদ্যোগের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন তিনি।

অপরদিকে মাইক্রোসফটের নির্বাহী ভাইস প্রেসিডেন্ট জ্যঁ-ফিলিপ্পে কোতোঁয়া বিবৃতিতে বলেছেন, ডেটাসেন্টার অঞ্চলটি মালয়েশিয়ার জন্য গেইম-চেঞ্জার হয়ে উঠবে,” এটি সরকার এবং ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে তাদের কার্যক্রমকে “রূপান্তর” করতে সক্ষম করবে। একই কর্মসূচির আওতায় মাইক্রোসফট ২০২৩ সাল নাগাদ ডিজিটাল দক্ষতা অর্জনে প্রায় ১০ লাখ মালয়েশিয়ানকে সহায়তা করবে।

গত ফেব্রুয়ারি মাসে মালেয়েশিয়া মাইক্রোসফট, গুগল, অ্যামাজন এবং রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন টেলেকোম মালয়েশিয়া মিলে হাইপার-স্কেল ডেটা সেন্টার তৈরি, ব্যবস্থাপনা এবং ক্লাউড সেবা দেওয়ার অনুমতি শর্তসাপেক্ষে দেয়। এর পর এটাই দেশটিতে মাইক্রোসফটের সবচেয়ে বড় বিনিয়োগ।

গত বছর দেশটিতে প্রত্যক্ষ বিদেশী বিনিয়োগ (এফডিআই) শতকরা ৬৮ ভাগ হ্রাসের পর দেশটিতে এই বিনিয়োগ এলো। দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় সবচেয়ে বড় বিনিয়োগ হ্রাসের ঘটনা ঘটেছে মালয়েশিয়াতেই।

বিদেশী বিনিয়োগের গন্তব্য হিসাবে মালয়েশিয়া এখনও নিজেকে রক্ষা করে চলেছে। সম্প্রতি দেশটির অর্থমন্ত্রী বলেন, আরও এফডিআই আকর্ষণ করার জন্য তারা প্রণোদনার বিষয়টি বিবেচনা করছেন।

দেশটিতে এই ক্লাউড সেবাদাতাদের বিনিয়োগ আগামী পাঁচ বছরে মোট ১২ বিলিয়ন থেকে ১৫ বিলিয়ন রিংগিত বা ২৯১ থেকে ৩৬৪ কেটি মার্কিন ডলারের মধ্যে হবে। সূত্র : রয়টার্স।

Leave A Reply

Your email address will not be published.